Thursday, 2 March 2017

ডিম ভাপা পকোড়া

মাঝে মাঝে মনে হয় এই যে আশেপাশে যত ব্যাঙের ছাতার মত গজিয়ে ওঠা রেঁস্তোরা আছে, এরা সবাই একই ধরণের খাবার কেন বিক্রী করে কে জানে! মানে "ক" দোকান যা বিক্রী করছে, "খ" নামক দোকানও সেই একই খাবার বিক্রী করছে এবং "গ" নামক দোকানের মেনুকার্ডেও সেই একই খাবার ঠাঁই পায় অন্য নামে। কেন রে বাপু একটু রদবদল করলে মানুষের স্বাদবদলও ঘটে আবার বিক্রীও বাড়ে। যাই হোক আমার না আছে দোকান, না রেঁস্তোরা, আছে শুধু এক ইচ্ছেহেঁশেল। যেখানে আমি আমার ভালোবাসার, কাছের মানুষগুলোর জন্য চিরপরিচিত স্বাদে রদবদল করে স্বাদকোরকের চাহিদা মেটাই। আর সেই খাবারগুলোর রান্নার বিবরণ সবার সাথে ভাগ করে দিই যাতে সবাই সবার ভালোবাসার, মনের কাছের মানুষগুলোকে তাই খাইয়ে স্বাদবদল ঘটাতে পারে।

তাই আজ অনেকদিন পর ইচ্ছেহেঁশেলের পাতায় চিরপরিচিত হাতের কাছে থাকা টুকটাক উপকরণ দিয়ে তৈরী ভাপা ডিমের পকোড়া।

টুকটাক যা লাগবেঃ

ডিমঃ ৪+২ = ৬টা
পিঁয়াজ কুচিঃ ২টো বড়
রসুন কুচিঃ ৮-১০ কোয়া
আদা বাটাঃ ১ চামচ (ছোট)
কাঁচা লঙ্কা কুচিঃ যে যেমন ঝাল খাবেন
ধনে পাতা কুচিঃ ১ চামচ
বেকিং পাউডারঃ ১ চিমটে
নুনঃ স্বাদ মতন
চিনিঃ ১ চিমটে
কর্ন ফ্লাওয়ারঃ ২ চামচ
ময়দাঃ ২ চামচ
সাদা তেলঃ

রান্না শুরুঃ

একটা বড় বাটিতে চারটে ডিম ফাটিয়ে ভালো করে ফেটিয়ে নিতে হবে। এর মধ্যে পিঁয়াজ কুচি, রসুন কুচি, লঙ্কা কুচি, নুন, চিনি, ধনে পাতা কুচি, বেকিং পাউডার দিয়ে ভালো করে মেশাতে হবে।

এবার একটা টিফিন কৌটোয় ভালো করে তেল মাখিয়ে, তার মধ্যে ডিমের মিশ্রণটা ঢেলে টিফিন কৌটোর মুখ ভালো করে আটকে দিতে হবে। একটা প্রেসার কুকারে একটু জল দিয়ে টিফিন কৌটোটা বসিয়ে ঢাকনা বন্ধ করে দিতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে যেন জলের স্তর টিফিন কৌটোর ঢাকনার ঠিক তলায় থাকে। high flame এ চারটে সিটি উঠলে গ্যাসের আঁচ কমিয়ে ১০-১৫ মিনিট রেখে গ্যাস বন্ধ করে দিতে হবে। যখন প্রেসার কুকারের ঢাকনা নিজে থেকে খুলবে, টিফিন কৌটো বের করে নিতে হবে।

টিফিন কৌটো থেকে ভাপা ডিম বের করে ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিয়ে একটা একটা করে হালকা ভেজে নিতে হবে। কর্নফ্লাওয়ার, ময়দা আর বাকি ২টো ডিম, টাটকা আধভাজা গোলমরিচ, নুন একসাথে ভালো করে bater তৈরী করে নিতে হবে। এবার এই bater এ ডিমের টুকরোগুলো ডুবিয়ে ছাঁকা তেলে ভেজে নিলেই ডিম ভাপা পকোড়া is ready to serve.

বিঃ দ্রঃ

(i) যে কটা ডিম নেবেন, প্রেসার কুকারে সেই কটাই সিটি দেবেন।

(ii) প্রেসার কুকার থেকে টিফিন কৌটো বের করার জন্য সাঁড়াশি বা মোটা কোন কাপড়ের সাহায্য নেবেন।
(iii) কৌটো থেকে ভাপা ডিম বের করার জন্য বেলচা জাতীয় চামচ বা হাতার সাহায্য নেবেন।
(iv) কৌটো থেকে ডিম যদি মসৃণভাবে নাও বেরোয়, অসুবিধে নেই। টুকরো সমান না হলেও চলবে।
(v) বেকিং পাউডার চাইলে না-ও দিতে পারেন।

আজকাল বহু মানুষেরই নানান শারীরিক সমস্যা থাকে, যার কারণে খাওয়ার ওপরে অনেক বিধিনিষেধ চেপে যায়। সুগার, প্রেসার, কোলেস্টেরল, ইউরিক অ্যাসিড, বেশী ওজনের সমস্যা আরও কত কী! কিন্তু সব অসুখের সবচেয়ে বড় ওষুধ হল মনের আনন্দ। তাই সারা সপ্তাহ বা সারা মাস বাঁধা ধরা নিয়মে চলে একদিন নিজের ইচ্ছেমতন যা খুশি খাওয়ার অনুমতি তো ডাক্তারও দিয়ে থাকেন। তাই মন ভালো করতে, স্বাদকোরকের চাহিদা মেটাতে কোন একদিন বা যেকোনদিন বানিয়ে ফেলুন "ডিম ভাপা পকোড়া"।

দিদার দুই রেসিপি

আমার মা সব কথাতেই বলে রান্নাটা নাকি জিনের ব্যাপার। জিন কি ভূত কি জিনি তা বলতে পারব না, তবে একথা সত্যি বটে আমার দিদা এবং মা-র হাতের রান্নার ...